সমাবেশের মধ্য দিয়ে শেষ হলো বাসদের রোড মার্চ

33

a

লাইভ বার্তাঃ

ভারতের একতরফা পানি প্রত্যাহারের প্রতিবাদে তিস্তা নদীসহ ৫৪টি অভিন্ন নদীর পানির ন্যায্য হিস্যার দাবিতে বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দলের (বাসদ) রোড মার্চ নীলফামারীর তিস্তা ব্যারাজের সাধুর বাজারে এসে শেষ হয়। পরে একই স্থানে সমাবেশ করেছে তারা।

বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টার দিকে তিস্তা ব্যারেজ সংলগ্ন সাধুর বাজারে পৌঁছে বাসদের নেতাকর্মীরা সমাবেশের মাধ্যমে দুই দিনব্যাপী রোড মার্চের সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

সমাবেশে রংপুর জেলা বাসদ সমন্বয়ক কমরেড আব্দুল কুদ্দুসের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কমরেড বজলুর রশীদ ফিরোজ, কমরেড জাহেদুল হক মিলু।

এছাড়া উপস্থিত ছিলেন, কমরেড রাজেকুজ্জামান রতন, সমাজতান্ত্রিক খেতমজুর ও কৃষক ফ্রন্টের কেন্দ্রীয় সদস্য ও নঁওগা জেলা বাসদ আহ্বায়ক জয়নাল আবেদীন মুকুল, বগুড়া জেলা আহ্বায়ক সাইফুল ইসলাম পল্টু, রংপুর জেলা সদস্যসচিব মমিনুল ইসলাম, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের রংপুর জেলা আহ্বায়ক সাদেক হোসেন প্রমুখ।



বক্তারা  বলেন, উজানে পানি সরিয়ে নেয়ায় ভারতীয় আগ্রাসী তৎপরতা ও দেশের ভেতরে সরকারের ভ্রান্তনীতি ও দখল-দূষণে ১ হাজার ২ শত কমে ২৩০ এ নেমে এসেছে এবং নদীর চেহারা খালে পরিণত হয়েছে। দেশের ৪র্থ বৃহত্তম নদী তিস্তা শুষ্ক মৌসুম আসতে না আসতেই পানিপ্রবাহ আশঙ্কাজনকভাবে কমে গেছে।

বক্তারা আরও বলেন, ২০ জানুয়ারি  তিস্তার পানিপ্রবাহ ছিল সর্বনিম্ন ৪০০ কিউসেক। ৩১৫ কি.মি. দীর্ঘ তিস্তা অববাহিকার ১১৫ কি. মি. ক্যাচমেন্ট এরিয়ার ১৭% পড়েছে বাংলাদেশে।

তিস্তা আন্তর্জাতিক নদী হওয়া সত্ত্বেও ভারত একতরফা বাঁধ দিয়ে বিদ্যুৎ উৎপাদন ও ৫ লাখ ৪০ হাজার হেক্টর জমিতে সেচের জন্য পানি প্রত্যাহার করছে।

ভারত আন্তর্জাতিক নিয়মনীতি লঙ্ঘন ভঙ্গ করে আগত ৫৪টি নদীর ওপর একতরফাভাবে বাঁধ নির্মাণ করছে। তাই বার বার আমাদের রোডমার্চের মতো কর্মসূচি পালন করতে হচ্ছে।

যতোদিন পর্যন্ত  তিস্তাসহ অভিন্ন ৫৪টি নদীর পানির ন্যায্য হিস্যা পাবো না ততদিন বাংলাদেশ সরকারকে বাধ্য করতে কঠোর কর্মসূচি দেয়া হবে।

এর আগে বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল বাসদ রংপুর ও রাজশাহী বিভাগের উদ্যোগে বগুড়ার সাতমাথা হতে বুধবার সকাল ১১টায় রোড মার্চ শুরু করে। যার উদ্বোধন করেন বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক কমরেড খালেকুজ্জামান।

১০টি গাড়ির রোডমার্চটি মহাস্থানগড়, মোকামতলা, ফাঁসিতলা, গোবিন্দগঞ্জ, পলাশবাড়ী, ধাপেরহাট ও রংপুর-পীরগঞ্জ, শঠিবাড়ি, মিঠাপুকুরসহ বিভিন্ন স্থানে পথসভা-সমাবেশ শেষ রংপুরে এসে রাতযাপন করে।

এরপর বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় রংপুর পাবলিক লাইব্রেরি মাঠে সমাবেশের মাধ্যমে নীলফামারীর তিস্তা ব্যারাজ অভিমুখে রোড মার্চ শুরু করে। পথে পাগলাপীর, তারাগঞ্জ, কিশোরীগঞ্জ ও জলঢাকার  বিভিন্ন স্থানে পথসভা করে।

ঝ/০৬

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY