ওসমানী জাতির অনুপ্রেরনার উৎস : গোলাম মোস্তফা ভুইয়া

25

লাইভ বার্তা ডেস্কঃ
NAP News 16-02-17বাংলাদেশের আজাদী তথা স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মহান মুক্তিযুদ্ধের বীর সেনানী জেনারেল এম.এ.জি ওসমানী আমাদের জাতীর অহংকার হিসাবে অবিহিত করে বাংলাদেশ ন্যাপ এর আলোচনা সভায় নেতৃবৃন্দ বলেছেন, স্বাধীনতা পরবর্তী গণতান্ত্রিক আন্দোলনে এক উজ্জ্বলতম নাম জেনারেল ওসমানী। রাজনৈতিক জীবনের পুরোটাই তিনি গণতান্ত্রিক ও অসাম্প্রদায়িক রাজনীতি বিকাশে কাজ করেছেন। বাংলাদেশের স্বাধীনতা পরবর্তী ও আজকের প্রেক্ষাপটে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠায় জেনারেল এম.এ.জি ওসমানী সমগ্র জাতির অনুপ্রেরনার উৎস।

বৃহস্পতিবার নয়াপল্টনস্থ যাদু মিয়া মিলনায়তনে মুক্তিযুদ্ধের সর্বাধিনায়ক জেনারেল এম.এ.জি ওসমানীর ৩৩তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি-বাংলাদেশ ন্যাপ ঢাকা মহানগর আয়োজিত স্মরণ সভায় নগর আহ্বায়ক সৈয়দ শাহজাহান সাজু’র সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন ন্যাপ মহাসচিব এম. গোলাম মোস্তফা ভুইয়া। আলোচনায় অংশগ্রহন করেন ন্যাপ যুগ্ম মহাসচিব মোঃ নুরুল আমান চৌধুরী, সম্পাদক মোঃ কামাল ভুইয়া, মতিয়ারা চৌধুরী মিনু, নগর সদস্য সচিব মোঃ শহীদুননবী ডাবলু, যুগ্ম আহ্বায়ক অধ্যক্ষ নজরুল ইসলাম, সদস্য আবদুল্লাহ আল কাউছারী, যুব ন্যাপ যুগ্ম সমন্বয়কারী জিল্লুর রহমান পলাশ, জাতীয় ছাত্র কেন্দ্রের যুগ্ম সমন্বয়কারী সোলায়মান সোহেল প্রমুখ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে এম. গোলাম মোস্তফা ভুইয়া বলেছেন, মুক্তিযুদ্ধের সর্বাধিনায়ক জেনারেল এম.এ.জি ওসমানী মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার প্রতিষ্ঠায় আজীবন কাজ করেছেন। গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে তিনি সমগ্র জাতির অনুপ্রেরনার উৎস। দেশের জাতীয় স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব, পতাকা-মানচিত্র, জাতীয় অস্তিত্ব রক্ষায় জেনারেল ওসমানীর আদর্শ সমগ্র জাতির মাঝে প্রতিফলিত করতে হবে। তাকে বাদ দিয়ে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ, মুক্তিসংগ্রাম আর গণতন্ত্রের ইতিহাস রচনা করা সম্ভব নয়।

সভাপতির বক্তব্যে সৈয়দ শাহজাহান সাজু বলেছেন, গণতন্ত্রের মহানায়ক জেনারেল ওসমানী এমনই একজন রাজনৈতিক নেতা যার জীবন আলোচনা বাংলাদেশের অসমাপ্ত গণতান্ত্রিক মুক্তি ও গণমুক্তি সংগ্রামকে শানিত ও শক্তিশালী করতে পারে।

(লাইভবার্তা২৪ডটকম /জিএম/জানুয়ারী ১৬, ফেব্রুয়ারী, ২০১৭)

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY